ঢাকা ০৪:৩০ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জুমার নামাজে শরিক হতে টঙ্গী অভিমুখে লাখো মুসল্লির ঢল

নিজস্ব সংবাদ :

গাজীপুরের টঙ্গীতে বিশ্ব ইজতেমা ময়দানে দুপুর দেড়টায় বৃহত্তম জুমার নামাজ অনুষ্ঠিত হবে। নামাজে অংশগ্রহণ করতে ময়দানের চারপাশ থেকে লাখ লাখ মুসল্লি এখন টঙ্গীমুখী।

বাস, ট্রেন, লঞ্চ, ট্রাক, রিকশা, অটোরিকশা ও ব্যক্তিগত গাড়িযোগে টঙ্গীমুখী জনস্রোত এখন বাঁধভাঙা। সবার লক্ষ্য ইজতেমা ময়দানে জুমার নামাজে অংশগ্রহণ করা।

সরেজমিন দেখা যায়, ঢাকা-ময়মনসিংহ, ঢাকা-আশুলিয়া, ঢাকা-কালীগঞ্জসহ চারপাশের সড়ক-মহাসড়কে প্রচুর ভিড়। মুসল্লিদের টঙ্গীমুখী যাত্রার কারণে রাস্তায় যানবাহন কমে যাওয়ায় মানুষ পায়ে হেঁটে ময়দানে আসছেন। ইতোমধ্যে যারা ইজতেমা ময়দানে জামাত নিয়ে এসেছেন, তাদের ছাড়াও অনেক মানুষ শুধু জুমার নামাজ আদায় করতে ইজতেমা মাঠে আসছেন। জুমার নামাজের পর ভিড় কিছুটা কমবে বলে আশা করছেন মুসল্লিরা।

বিশ্ব ইজতেমায় আসা গাজীপুরের মো. সেলিম মিয়া বলেন, জুমার নামাজ পড়তে এসেছি। জুমার পর চলে যাব। আখেরি মোনাজাতে আবার আসব।

সিলেট থেকে আসা মুসল্লি ইলিয়াস আহমেদ বলেন, আজ সকালে আসলাম। জুমার নামাজ পড়ে আর যাব না। আখেরি মোনাজাত করে বাড়ি যাব।

আজকের জুমার নামাজে ইমামতি করবেন কাকরাইল জামে মসজিদের পেশ ইমাম ও খতিব হাফেজ মাওলানা মোহাম্মদ জোবায়ের আহমেদ।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপলোডকারীর তথ্য

Dainik Renaissance

আমাদের ওয়েসাইটে আপনাকে স্বাগতম। আপনাদের আশে পাশের সকল সংবাদ দিয়ে আমাদের সহযোগীতা করুন
আপডেট সময় ১২:৫৭:১৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
৭৫ বার পড়া হয়েছে

জুমার নামাজে শরিক হতে টঙ্গী অভিমুখে লাখো মুসল্লির ঢল

আপডেট সময় ১২:৫৭:১৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

গাজীপুরের টঙ্গীতে বিশ্ব ইজতেমা ময়দানে দুপুর দেড়টায় বৃহত্তম জুমার নামাজ অনুষ্ঠিত হবে। নামাজে অংশগ্রহণ করতে ময়দানের চারপাশ থেকে লাখ লাখ মুসল্লি এখন টঙ্গীমুখী।

বাস, ট্রেন, লঞ্চ, ট্রাক, রিকশা, অটোরিকশা ও ব্যক্তিগত গাড়িযোগে টঙ্গীমুখী জনস্রোত এখন বাঁধভাঙা। সবার লক্ষ্য ইজতেমা ময়দানে জুমার নামাজে অংশগ্রহণ করা।

সরেজমিন দেখা যায়, ঢাকা-ময়মনসিংহ, ঢাকা-আশুলিয়া, ঢাকা-কালীগঞ্জসহ চারপাশের সড়ক-মহাসড়কে প্রচুর ভিড়। মুসল্লিদের টঙ্গীমুখী যাত্রার কারণে রাস্তায় যানবাহন কমে যাওয়ায় মানুষ পায়ে হেঁটে ময়দানে আসছেন। ইতোমধ্যে যারা ইজতেমা ময়দানে জামাত নিয়ে এসেছেন, তাদের ছাড়াও অনেক মানুষ শুধু জুমার নামাজ আদায় করতে ইজতেমা মাঠে আসছেন। জুমার নামাজের পর ভিড় কিছুটা কমবে বলে আশা করছেন মুসল্লিরা।

বিশ্ব ইজতেমায় আসা গাজীপুরের মো. সেলিম মিয়া বলেন, জুমার নামাজ পড়তে এসেছি। জুমার পর চলে যাব। আখেরি মোনাজাতে আবার আসব।

সিলেট থেকে আসা মুসল্লি ইলিয়াস আহমেদ বলেন, আজ সকালে আসলাম। জুমার নামাজ পড়ে আর যাব না। আখেরি মোনাজাত করে বাড়ি যাব।

আজকের জুমার নামাজে ইমামতি করবেন কাকরাইল জামে মসজিদের পেশ ইমাম ও খতিব হাফেজ মাওলানা মোহাম্মদ জোবায়ের আহমেদ।